নোটিশ বোর্ড

নজরুলগীতির সকল অতিথি ও শুভানুধ্যায়ীকে জানাচ্ছি ইংরেজি নববর্ষের শুভেচ্ছা ও অভিনন্দন।

গান শুনুন

Print

পদ্মার ঢেউ রে

বাণী

পদ্মার ঢেউ রে
মোর শূণ্য হৃদয়পদ্ম নিয়ে যা, যা রে।
এই পদ্মে ছিল রে যার রাঙ্গা পা
আমি হারায়েছি তারে।।
মোর পরানবঁধু নাই, পদ্মে তাই মধু নাই (নাই রে)
বাতাস কাঁদে বাইরে, সে সুগন্ধ নাই রে
মোর রূপের সরসীতে আনন্দমৌমাছি নাহি ঝঙ্কারে রে।।
ও পদ্মারে

ঢেউয়ে তোর ঢেউ ওঠায় যেমন চাঁদের আলো
মোর বঁধুয়ার রূপ তেমনি ঝিল্‌মিল করে কৃষ্ণকালো।
সে প্রেমের ঘাটে ঘাটে বাঁশি বাজায়
যদি দেখিস্‌ তারে, দিস্‌ এই পদ্ম তার পায়
বলিস্‌, কেন বুকে আশার দেয়ালি জ্বালিয়ে
ফেলে গেল চিরঅন্ধকারে।

রাগ ও তাল

আরবি সুর

তালঃ দ্রুত -দাদ্‌রা


অডিও

শিল্পীঃ খায়রুল আনাম শাকিল

 

Print

পরদেশি মেঘ, যাও রে ফিরে

বাণী

পরদেশি মেঘ যাও রে ফিরে।

বলিও আমার পরদেশি রে।।

সে দেশে যবে বাদল ঝরে

কাঁদে না কি প্রাণ একেলা ঘরে,

বিরহ ব্যথা নাহি কি সেথা বাজে না বাঁশি নদীর তীরে।।

বাদল রাতে ডাকিলে পিয়া পিয়া পিয়া পাপিয়া,

বেদনায় ভরে ওঠে না কি রে কাহারো হিয়া।

ফোটে যবে ফুল, ওঠে যবে চাঁদ

জাগে না সেথা কি প্রাণে কোন সাধ,

দেয় না কেহ গুরুগঞ্জনা সে দেশে বুঝি কুলবতী রে।।

রাগ ও তাল

রাগঃ সিংহেন্দ্র মধ্যম (দক্ষিণী রাগ)

তালঃ আদ্ধা


অডিও

শিল্পীঃ ইন্দ্রানী গাঙ্গুলি

স্বরলিপি


 

Print

পথহারা পাখি কেঁদে ফিরে একা

বাণী

পথহারা পাখি কেঁদে ফিরে একা
আমার জীবনে শুধু আঁধারের লেখা।।
বাহিরে অন্তরে ঝড় উঠিয়াছে
আশ্রয় যাচি হায় কাহার কাছে
	বুঝি দুখ-নিশি মোর
	হবে না হবে না ভোর
ফুটিবে না আশার আলোক রেখা।।

নাটকঃ ‘সিরাজদ্দৌলা’

রাগ ও তাল

রাগঃ

তালঃ

ভিডিও

Print

নূরজাহান! নূরজাহান!

বাণী

নূরজাহান, নূরজাহান!
সিন্ধু নদীতে ভেসে,
এলে মেঘলামতীর দেশে, ইরানি গুলিস্তান।।

নার্গিস লালা গোলাপ আঙ্গুরলতা

শিঁরি ফরহাদ সিরাজের উপকথা
এনেছিলে তুমি তনুর পেয়ালা ভরি
বুলবুলি দিলরুবা রবাবের গান।।

তব প্রেমে উন্মাদ ভুলিল সেলিম, সে যে রাজাধিরাজ

চন্দন সম মাখিল অঙ্গে কলঙ্ক লোকলাজ।

যে কলঙ্ক লয়ে হাসে চাঁদ নীল আকাশে,
যাহা লেখা থাকে শুধু প্রেমিকের ইতিহাসে,
দেবে চিরদিন নন্দনলোকচারী
তব সেই কলঙ্ক সে প্রেমের সম্মান।।

রাগ ও তাল

রাগঃ সিন্ধুড়া

তালঃ কাহার্‌বা


অডিও

শিল্পীঃ খিলখিল কাজী

শিল্পীঃ শ্যামল মিত্র

 

Print

নীলাম্বরী সাড়ি পরি নীল যমুনায়

বাণী

নীলাম্বরীশাড়ি পরি নীল যমুনায় কে যায়?

যেন জলে চলে থলকমলিনী ভ্রমর নূপুর হয়ে বোলে পায় পায়।।

কলসে কঙ্কনে রিনিঠিনি ঝনকে,

চমকায় উন্মন চম্পা বনকে,

দলিত অঞ্জন নয়নে ঝলকে, পলকে খঞ্জন হরিণী লুকায়।।

অঙ্গের ছন্দে পলাশমাধবী অশোক ফোটে,

নূপুর শুনি বনতুলসীর মঞ্জরী উলসিয়া ওঠে।

মেঘবিজড়িত রাঙা গোধূলি

নামিয়া এলো বুঝি পথ ভুলি,

তাহার অঙ্গ তরঙ্গবিভঙ্গে কুলে কুলে নদী জল উথলায়।।

রাগ ও তাল

রাগঃ নীলাম্বরী

তালঃ ত্রিতাল

 

Print

নিশি নিঝুম ঘুম নাহি আসে

বাণী

নিশি নিঝুম ঘুম নাহি আসে,
হে প্রিয়, কোথা তুমি দূর প্রবাসে।।
বিহগী ঘুমায় বিহগকোলে,
ঘুমায়েছে ফুলমালা শ্রান্ত আঁচলে;
ঢুলিছে রাতের তারা চাঁদের পাশে।।
ফুরায় দিনের কাজ, ফুরায় না রাতি,
শিয়রের দীপ হায় অভিমানে নিভে যায়
নিভিতে চাহে না নয়নের বাতি।
কহিতে নারি কথা তুলিয়া আঁখি
বিষাদমাখা মুখ গুন্ঠনে ঢাকি
দিন যায় দিন গুণে, নিশি যায় নিরাশে।।

রাগ ও তাল

রাগঃ বেহাগ

তালঃ ত্রিতাল

স্বরলিপি


 

লগইন

বাণী দেখা হয়েছে

গানের বাণী দেখা হয়েছে 2098559 বার

ওয়েব সাইটটি দেখা হয়েছে

ওয়েব সাইটটি দেখা হয়েছে 4299787 বার